ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম বাংলা অর্থসহ

BanglaTeach
E-Haq
Digital Marketer at- BanglaTeach

E-Haq is the founder of BanglaTeach. He is expertise on Education, Health, Financial, Banking,...

Sharing is caring!

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম
ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম রাখতে চেয়ে সদ্য জন্ম নেওয়া মেয়ে সন্তানের গার্ডিয়ানরা গুগল করে থাকে। উপযুক্ত তথ্য ও পছন্দকৃত ইসলামিক নাম না থাকায়, সন্তানের বাবা-মা তাদের কণ্যা সন্তানের জন্য নাম সিলেক্ট করতে হিমশিম খেতে হয়। আর তাদের দিকটিকে মাথায় রেখে, আজকের আমাদের এই আর্টিকেলটি। আজকের আর্টিকেলে আমরা ব দিয়ে মেয়েদের বেশ অনেকগুলো আধুনিক মিষ্টি ইসলামিক নাম দেখবো। ( ও দিয়ে মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম সহ আযানের পর তিন শব্দের দোয়ার ফজিলত সমূহ সম্পর্কে জানুন )

সাধারণত মা-বাবা যখন তাঁর মেয়ে কিংবা ছেলে ‍উভয়ের জন্য একটি নাম রাখতে চায়, ঠিক তখন কয়েকটি ব্যাপার বিশেষ করে তাদেরকে মাথায় রাখতে হয়। অর্থাৎ একজন মুসলিমের জন্য বিশেষ করে ৩টি জিনিসের প্রতি লক্ষ্য রাখা ব্যাপক গুরুত্বপূর্ণ। কি সেগুলো?

যখনই সন্তানের জন্য নাম রাখা হয়, তখন একজন মুসলিমের উচিত সেই নামটির সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেওয়া। সেই নামটি ইসলামিক নাম কি-না। সেই নামটির সাথে শিরকের কোনো রকম সংস্পর্শতা রয়েছে কি-না এবং নামের অর্থ ইতিবাচক কি-না। মোটামোটি এই ৩টি জিনিস যদি কোনো গার্ডিয়ান লক্ষ্য করে তার মেয়ের জন্য ইসলামিক নাম রাখে, তাহলে আশা করি, সে চমৎকার এবং ইতিবাচক অর্থবহ একটি ইসলামিক নাম সিলেক্ট করতে সক্ষম হবে।

যাইহোক, আলোচনা বিলম্ব না করে চলুন জেনে নেওয়া যাক ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম এর সম্পূর্ণ তালিকাটি।

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামগুলো

আজকের সম্পূর্ণ আর্টিকেল জুড়ে ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামগুলো নিয়েই আলোচনা হয়েছে। পাঠকদের সুবিধার্থে মেয়েদের ব দিয়ে নামকে বেশ কয়েকটি ভাগে ভাগ করা হয়েছে এবং সেগুলোকে হেডিং ৩ এ ট্রান্সফার করা হয়েছে। সুতরাং আশা করি আপনারা যারা ব দিয়ে সুন্দর একটি ইসলামিক নাম খুঁজছেন, তাঁরা আজকের আর্টিকেল থেকে যেকোনো একটি সিলেক্ট করতে সক্ষম হবেন। তাহলে চলুন জেনে নেই বেশ কয়েকটি ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম। (

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামের তালিকা

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামের তালিকা

এখানে ব দিয়ে মেয়েদের মোট ২৫+ ইসলামিক নাম দেওয়া হয়েছে এবং এরই ধারাবাহিকতায় নিম্নে আরো সাব-হেডিং দ্ধারা এভাবে মোট ১৫০+ মেয়েদের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। সবগুলো নাম মেয়েদের জন্য ব দিয়ে এবং সবগুলো নাম হলো ইসলামিক বাচাই করা নাম। তাহলে চলুন জেনে নিই-

  • বাসেরা = Baserah = দৃষ্টি শক্তি / প্রথ্যক্ষ কারিনী
  • বাসেরা খাতুন = Baserah khatun = প্রত্যক্ষকারিনী মহিলা
  • বাতুল = Batul = তপস্বী / সৃষ্টিকর্তার প্রতি অনুগত / ধার্মিক কুমারী
  • বদর / বাদর = Badr = পূর্ণিমার চাঁদ
  • বাদিয়াহ = Badi’ah = অভিনব
  • বুরাইদা = Buraidah = বাহক / ছোট চাদর
  • বারক = Bura = বিদ্যুৎ
  • বিলকীস / বিলকিস = Bilqis = দেশের রাণী
  • বাহীজা = Bahija = সুন্দরী চিত্তা কর্ষক
  • বাহার = Bahar = বসন্ত কাল
  • বারীরা = Barira = উপকারী / সাহাবীয়ার নাম
  • বারীয়া = Barea = নির্দোষ / নিরপরাধ
  • বকুল = Bokul = ফুলের নাম 
  • বিনি = Bini = বিনা 
  • বিনত = Binot = বালিকা 
  • বিপাশা = Bipasha = নদী 
  • বিভা = Biva = আলো 
  • বিনিতা = Binita = বিনয়ন্বতি 
  • বিজলী = Bijli = বিদ্যুৎ / আলো
  • বাসেলাহ = Baselah = বীরাঙ্গনা 
  • বাসেরা = Basera = দৃষ্টি শক্তি / প্রথ্যক্ষ কারিনী
  • বাতুল = Batul = তপস্বী / সৃষ্টিকর্তার প্রতি অনুগত / ধার্মিক কুমারী
  • বদর = Bador = পূর্ণিমার চাঁদ
  • বাদিয়াহ = Badiya = অভিনব 
  • বুরাইদা = Buraida = বাহক / ছোট চাদর

ব দিয়ে মেয়েদের আধুনিক নামের তালিকা

ব দিয়ে মেয়েদের আধুনিক নামের তালিকা

ইতিমধ্যে আমরা ব দিয়ে মেয়েদের অনেকগুলো ইসলামিক নাম সম্পর্কে জানলাম। এখন আমরা মেয়েদের আধুনিক ইসলামিক নামগুলো জানার চেষ্টা করবো। তবে এখানে যে যে নামগুলো থাকবে, সবগুলোই ইসলামিক নাম এবং সবগুলো নামের অর্থই ইতিবাচক। এখানে এমন কোনো রকম নাম উল্লেখ করা হয় নি, যা দ্ধারা নেতিবাচক কোনো কিছুকে ইঙ্গিত করা হয়েছে কিংবা কোনো অর্থ বোঝানো হয়েছে। আর সেই কারণেই উক্ত মেয়েদের নামগুলো এখানে ক্রমান্বয়ে তুলে ধরা হচ্ছে। এভার আমরা জানবো ব দিয়ে মেয়েদের আধুনিক ইসলামিক নামগুলো। সে কারণেই নিম্নে একটি তালিকা আকারে সবগুলো নাম তুলে ধরা হয়েছে। চলুন জেনে নেই ব দিয়ে মেয়েদের আধুনিক নামের তালিকাটি-

  • বারক = Barak = বিদ্যুৎ 
  • বুবায়রা = Bubaiya = সাহাবীয়ার নাম / পুণ্যবতী
  • বাসসাম = Bassam = মৃদু হাসিমুখ 
  • বুশরা = Busra = সুসংবাদ / শুভ নিদর্শন
  • বসীরত = Bosirot = সূক্ষ্ম দৃষ্টি শক্তি
  • বালীগা = Baliga = প্রাঞ্জল ভাষিণী 
  • বিলকীস = Bilkis = দেশের রাণী
  • বাহীজা = Bahija = সুন্দরী চিত্তা কর্ষক
  • বাহার = Bahar = বসন্ত কাল
  • বাশীরাহ = Bashirah = উজ্জ্বল
  • বাশা-শাত = Basha Shat = প্রানোচ্ছেলতা
  • বাসীমাহ = Basimah = হাস্যোজ্জল
  • বুছাইনা = Busaina = সুন্দরী স্ত্রীলোক
  • বাশাশাত শামা = Bashashat Shama = প্রানোচ্ছল প্রদীপ
  • বাসীমাহ মারইয়াম = Basimah Maryam = হাস্যোজ্জল কুমারী
  • বারীয়া তাহসীন = Barira Tahsin = উপকারী সুন্দর
  • বুবায়রা = Buraira = সাহাবীয়ার নাম / পুণ্যবতী
  • বাসসাম = Bassam = মৃদু হাসিমুখ
  • বুশরা = Bushra = সুসংবাদ / শুভ নিদর্শন
  • বসীরত = Basirat = সূক্ষ্ম দৃষ্টি শক্তি
  • বালীগা = Baligah = প্রাঞ্জল ভাষিণী
  • বিসমিল্লাহ = Bismillah = আল্লাহর নামে
  • বদরুন্নেসা = Badarun naisa = পূর্ণিমার চাঁদ তূল্য মহিলা
  • বদরুন নাহার = Badarun nahar = চাঁদের আলোর দিন
  • বাহা = Baha = আলো

ব দিয়ে দুই অক্ষরের মেয়েদের আধুনিক নাম

ব দিয়ে দুই অক্ষরের মেয়েদের আধুনিক নাম

এই পর্বে আমরা ব দিয়ে মেয়েদের দুই অক্ষরের নামগুলো পড়ার চেষ্টা করবো। এখানে যে নামগুলো তুলে ধরা হবে, তারঁ প্রায় সবগুলোই হলো ব দিয়ে দুই অক্ষরের মেয়েদের আধুনিক নাম। যদিও সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হয়েছে ব দিয়ে মেয়েদের দুই অক্ষরের নামগুলোকে বের করে আনতে। সবগুলো নামই ইতিবাচক এবং ইসলামিক নাম। যদি আপনি আপনার মেয়ের জন্য সুন্দর ও ইসলামিক একটি ব বর্ণ দিয়ে নাম রাখতে চান, তাহলে আশা করি নিম্নোক্ত নামগুলো আপনার জন্য বেশ উপকারক হবে। তাহলে চলুন নিম্নে উল্লেখিত ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামগুলো জেনে নিই-

  • বকুল = Bakul = ফুলের নাম
  • বিনি = Bini = বিনা
  • বাহার = Bahar = বসন্ত কাল।
  • বারীরা = Barira = উপকারী, সাহাবীয়ার নাম।
  • বারীয়া = Barea = নির্দোষ, নিরপরাধ।
  • বাশীরাহ = Bashirah = উত্তল।
  • বাশা-শাত = Basha Shat = প্রানোচ্ছেলতা।
  • বাসীমাহ = Basimah = হাস্যোজ্জল।
  • বুছাইনা = Busaina = সুন্দরী স্ত্রীলোক।
  • বদিহা = Badiha = অন্তর্দৃষ্টি, উপলব্ধি।
  • বদরা = Badra = পূর্ণিমা।
  • বদরিয়া = Badriya = পূর্ণিমার চাঁদের মতো।
  • বাহার = Bahar = বসন্ত, তারুণ্যের প্রস্ফুটিত।
  • বাহারবানো = Baharbano = প্রসফুটিত রাজকুমারী।
  • বাহিজা = Baheeja = সুখী।
  • বাহিয়া = Bahia = চমৎকার।
  • বিনত = Binoth = বালিকা
  • বিপাশা = Bipasha = নদী
  • বিভা = Biva = আলো
  • বিনিতা = Binita = বিনয়ন্বতি
  • বিজলী / বিজলি = Bijli = বিদ্যুৎ / আলো
  • বাসেলাহ = Baselah = বীরাঙ্গনা
  • বিসমিল্লাহ = Bismillah = আল্লাহর নামে 
  • বদরুন্নেসা = Bodrunesa = পূর্ণিমার চাঁদ তূল্য মহিলা
  • বাহা = Baha = আলো

ব/B দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক সুন্দর নাম অর্থসহ

ব B দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক সুন্দর নাম অর্থসহ

ব অথবা B দিয়ে বর্তমানে ইন্টারনেটে থাকা নামগুলো বেশ জনপ্রিয় নাম আর মানুষগণ উক্ত নামগুলো তাঁর সন্তান তথা মেয়ের জন্য রাখতে চায়। তবে নাম রাখলেই হবে না, নামের অর্থ, নামটি ইসলামিক নাম কি-না এরকম ইত্যাদি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে হবে। তবেই আপনি স্বার্থকপূর্ণ একটি ইসলামিক নাম আপনার মেয়ে কিংবা ছেলের জন্য রাখতে সক্ষম হবেন। আর সেই কারণেই আজকের আর্টিকেলে আমরা ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক সুন্দর নাম অর্থসহ নিয়ে আসলাম। ইতিমধ্যে আপনারা অনেকগুলো ইসলামিক সুন্দর নাম অর্থসহ জানলেন, এবং নিম্নে আরো অনেকগুলো নাম তুলে ধরা হয়েছে। সর্বপরি, আশা করি আজকের আর্টিকেল থেকে আপনার সন্তান কিংবা আত্মীয় কারো জন্য ব দিয়ে মেয়েদের একটি নাম চয়েজ করতে পারবেন।

  • বারীরা = Barira = উপকারী / সাহাবীয়ার নাম
  • বারীয়া = Barira = নির্দোষ / নিরপরাধ
  • বাশীরাহ = Bashira = উজ্জ্বল 
  • বাশা-শাত = Basasat = প্রানোচ্ছেলতা 
  • বাসীমাহ = Basimah = হাস্যোজ্জল 
  • বুছাইনা = Bacina = সুন্দরী স্ত্রীলোক
  • বাসেলাহ = Baselah = বীরাঙ্গনা।
  • বাসেরা = Baserah = দৃষ্টি শক্তি, প্রথ্যক্ষ কারিনী।
  • বাতুল = Batul = যযকুমারী।
  • বাদর (বদর) = Badr = পূর্ণিমার চাঁদ।
  • বাদিয়াহ -Badi’ah = অভিনব, আশ্চর্যজনক, বিস্ময়কর।
  • বুরাইদা = Buraidah = বাহক, ছোট চাদর।
  • বারক = Bura = বিদ্যুৎ।
  • বাসেরা খাতুন = Baserah Khatun = প্রত্যক্ষকারিনী মহিলা।
  • বারীয়া তাহসীন = Barira Tahsin = নামের অর্থ = উপকারী সুন্দর।
  • বীনা  = Bima = যে দেখতে পাই
  • বুছরা =  Busra = সাহাবীর নাম
  • বুছায়না =  Busaina = সুন্দরী
  • বুরাইরা =  Buraira = সাহাবীর নাম
  • বুশরা  = Bushra = সুসংবাদ
  • বুহাইরা =  Buhaira = লেক
  • বুহাইরা =  Buhaira = হালকা ঝলক
  • বদরুন নাহার = Badarun nahar = চাঁদের আলোর দিন
  • বাহা  = Baha = আলো
  • বকুল  = Bakul = ফুলের নাম

ব (B) দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম অর্থসহ

ব (B) দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম অর্থসহ

মেয়েদের নাম রাখার ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু নিয়ম মেনে চললে আপনিও বেশ চমৎকার একটি ইসলামিক নাম রাখতে পারবেন। এখন সেই নিয়মগুলো কি কি? উপরে এই নিয়ে বিস্তারিত বলা হয়েছে এবং আমাদের সাইটে নাম রাখার ক্ষেত্রে দিক-নির্দেশনা মূলক প্রচুর তথ্য সম্মেলিত একটি আর্টিকেল রয়েছে। সুতরাং আপনি যদি নাম কিভাবে রাখতে হয় এবং কি কি নিয়মগুলো অনুসরণ করার মাধ্যমে নাম রাখতে হয়, সেগুলো বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে। আর সেই বিষয়গুলোকে কেন্দ্র করেই আজকের আর্টিকেলটি। অর্থাৎ আজকের আর্টিকেলে উল্লেখিত ব দিয়ে মেয়েদের সকল নামগুলো ইসলামিক নাম এবং সেগুলো ইতিবাচক অর্থবহ। এরকম নাম নিম্নে আরো অনেকগুলো দেওয়া হলো। তাহলে চলুন ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক আরো কতগুলো নাম জানা যাক।

  • বিনি = Bini = বিনা
  • বিনত = Binoth = বালিকা
  • বিপাশা =  Bipasha = নদী
  • বিভা = Biva = আলো
  • বুবায়রা = Buraira = সাহাবীয়ার নাম, পুণ্যবতী।
  • বিসমিল্লাহ = Bismillah = আল্লাহর নামে, (প্রচলিত নাম)।
  • বাসসাম = Bassam = মৃদু হাসিমুখ।
  • বুশরা = Bushra = সুসংবাদ, শুভ লক্ষণ।
  • বসীরত = Basirat = সূক্ষ্ম দৃষ্টি শক্তি।
  • বালীগা = Baligah = প্রাঞ্জল ভাষিণী।
  • বিলকীস = Bilqis = সাবা দেশের রাণী।
  • বাহীজা = Bahija = সুন্দরী চিত্তা কর্ষক।
  • বাহরা = Bahraa = সুন্দর, চকচকে।
  • বাজিলা = Bajila = সম্মানিত, মর্যাদাপূর্ণ।
  • বাকারাহ = Bakarah = কুমারীত্ব।
  • বখিতা = Bakhita = ভাগ্যবান।
  • বলবালা = Balbala = পাখির নাম, বুলবুল।
  • বালসাম = Balsam = বালসাম, বালাম।
  • বানো = Bano = ভদ্রমহিলা, রাজকুমারী।
  • বানুজা = Banujah = আল মাহদীর কন্যা।
  • বারেয়া = Bareea = নির্দোষ।
  • বরখা = Barkha = বৃষ্টি।
  • বাসারিয়া = Basaaria = সুন্দর, আগে।
  • বশিরা = Basheera = সুসংবাদ আনয়নকারী, জয়।
  • বাসমা = Basma = হাসি।

ব দিয়ে মেয়েদের সকল ধরনের ইসলামিক নাম

ব দিয়ে মেয়েদের সকল ধরনের ইসলামিক নাম

ব দিয়ে মেয়েদের সকল ধরনের ইসলামিক নাম জানার প্রেক্ষিতে ইতিমধ্যে আমরা ১২০+ মেয়েদের ইসলামিক নাম পড়েছি। এখন আমরা জানার চেষ্টা করবো ব দিয়ে মেয়েদের সকল ধরনের ইসলামিক নামের একটি নমুনা। নিম্নে আরো বেশ অনেকগুলো ইসলামিক নাম তুলে ধরা হয়েছে। যেগুলো আপনি আপনার ইচ্ছা অনুযায়ী আপনার মেয়ের জন্য রাখতে পারেন। আজকের আর্টিকেলে দেখানো প্রতিটি নামই সম্ভাব্য ইসলামিক নাম এবং আপনারা যখন একটি নাম সিলেক্ট করবেন, তখন অবশ্যই নাম রাখার ক্ষেত্রে যেসকল কন্ডিশনগুলো আছে, সেগুলো এক নজরে পড়ে নিবেন। আশা করি তখন একটি নাম চয়েজ করে বাস্তবিক জীবনে উপকৃত হতে পারবেন। তাহলে চলুন এখন জেনে নিই ব দিয়ে মেয়েদের সকল ধরনের ইসলামিক নামগুলো-

  • বীণা = Beena = পরিস্কার দেখা, দেখা।
  • বেগম = Begum = সম্মানজনক উপাধি, রানী।
  • বাজরিকা = Bazriqa = মহৎ।
  • বিবি = Bibi = পদমর্যাদার মহিলা।
  • বুদুর = Budur = পূর্ণিমা।
  • বুসাইনা = Busaina = বাসনার ক্ষীণ।
  • বাসীমাহ = Basimah = হাস্যোজ্জল
  • বুছাইনা = Busaina = সুন্দরী স্ত্রীলোক
  • বাশাশাত শামা = Bashashat Shama = প্রাণোচ্ছল প্রদীপ
  • বাসীমাহ মারইয়াম = Basimah Maryam = হাস্যোজ্জল কুমারী
  • বারীয়া তাহসীন = Barira Tahsin = উপকারী সুন্দর
  • বুস্তান = Bustan = বাগান।
  • বুকাইরাহ = Buqayrah = হাদীসের বর্ণনাকারী।
  • বাশাশাত শামা = Bashashat Shama = প্রানোচ্ছল প্রদীপ।
  • বদরুন্নেসা = Badarun Naisa = পূর্ণিমার চাঁদ তূল্য মহিলা।
  • বদরুন নাহার = Badarun Nahar = চাঁদের আলোর দিন।
  • বাসীমাহ মারইয়াম = Basimah Maryam = হাস্যোজ্জল কুমারী।
  • বিনিতা = Binita = বিনয়ন্বতি
  • বিজলী = Bijli = বিদ্যুৎ / আলো
  • বাসেরা = Baserah = দৃষ্টি শক্তি / প্রত্যক্ষ কারিণী
  • বাসেরা খাতুন = Baserah khatun = প্রত্যক্ষকারী মহিলা
  • বদর = Bador = পূর্ণিমার চাঁদ
  • বুবায়রা = Buraira = সাহাবীয়ার নাম / পুণ্যবতী
  • বাসসাম = Bassamম = ৃদু হাসি মুখ
  • বসীরত = Basirat = সূক্ষ্ম দৃষ্টি শক্তি
  • বাহার  = Bahar = বসন্ত কাল
  • বাশীরাহ  =  ashirah = উজ্জ্বল
  • বাশা-শাত = Basha shat  = প্রাণোচ্ছলতা

উপরোক্ত সবগুলো নাম ছিল ব দিয়ে এবং সবগুলো হলো ইসলামিক। যদি আপনি প্রথম হতে এখন অবধি সম্পূর্ণ নামের তালিকাটি পড়ে থাকেন, তাহলে আশা করি ব দিয়ে আপনি আপনার মেয়ের জন্য সুন্দর ও অর্থবহ নাম সিলেক্ট করতে সক্ষম হয়েছেন। আর যদি এখনোও সিঙ্গেল একটি নামও সিলেক্ট করতে না পেরে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় প্রথম হতে সম্পূর্ণ নামগুলো পড়ুন। আশা করি এখান হতে ব দিয়ে মেয়েদের জন্য একটি সুন্দর ইসলামিক নাম খুঁজে বের করতে সক্ষম হবেন।

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ জানার পাশাপাশি আমরা এর ইংরেজী বানান সহ জানলাম। যদিও এখানে ১৫০+ ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম দেওয়া হয়েছে, তবে যদি আপনি সত্যিকার অর্থে যেকোনো একটি নাম আপনার মেয়ের জন্য রাখতে চান, তাহলে এখানে উল্লেখিত নামগুলো থেকে যেকোনো একটি আপনি চয়েজ করতে পারেন।

প্রতিটি গার্ডিয়ান চায় তাঁর সন্তানের নামটি হোক অর্থবহ সহ ইসলামিক। আর সেই প্রেক্ষিতেই এখানে যেসকল নামগুলো উল্লেখ করা হয়েছে, তার প্রতিটি নামই হলো ইসলামিক নাম এবং সেই সাথে সবগুলো নাম হলো মেয়েদের। ব বর্ণ দিয়ে মেয়েদের নাম রাখার ক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হলো সঠিক ও ইতিবাচক অর্থবহ একটি নাম সিলেক্ট করা। যদিও এখন উক্ত ব্যাপারটি খুব সহজ। কেননা এখানে যে সমস্ত ব বর্ণ দিয়ে নাম রয়েছে, সবগুলোই্ হলো ইতিবাচক অর্থবহ নাম। তারপরও যদি আপনি এখানে থেকে যেকোনো একটি নাম চয়েজ করে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় আরকবার তা একজন আলেম কিংবা দ্ধীনি ভাই দ্ধারা চেক দিয়ে নিবেন। তাহলে দিন শেষে আপনি আপনার মেয়ের জন্য ব বর্ণ দিয়ে ভালো, সুন্দর ও অর্থবহ একটি নাম রাখতে পারবেন।

ব দিয়ে মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম

ব দিয়ে মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম

যখনই সন্তান জন্ম নেয়, তখনই তাদের গার্ডিয়ানদের উপর এক্সট্রা একটি চিন্তা হলো সন্তানের জন্য সঠিক ও সাবলীল একটি নাম রাখা। কিন্তু যখনই আমরা শিশুদের জন্য ভালো ও অর্থবহ একটি ইসলামিক নাম রাখতে যাই, ঠিক তখনই আমরা প্রবলেমে পড়ি। কি সেই সমস্যা? বর্তমান যুগে সম্ভবত আমরা প্রায় সবাই চাই, আমাদের সন্তানের নামটি ইসলামিক নাম হোক এবং সাথে সেই নামটি হোক অর্থবহ এবং যুগের সাথে তাল মিলিয়ে নামটি হোক আধুনিক। কিন্তু এতোকিছু গুছিয়ে পারপেক্ট একটি নাম বের করা বেশ কষ্টসাধ্য একটি ব্যাপার। তবে আমরা সেই কষ্ট কিছুটা হলেও লাঘব করতে আজকের আর্টিকেলে সহ আমাদের অন্য সকল আর্টিকেল বিভিন্ন রকম বর্ণ নিয়ে নিয়ে আসছি মেয়েদের ইসলামিক নাম। আপনি যদি প্রথম হতে লাস্ট অবধি ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নামগুলো পড়ে থাকেন, তাহলে আশা করি আপনি আপনার মেয়ে কিংবা কণ্যার জন্য পারপেক্ট এবং উপুক্ত একটি ইসলামিক আধুনিক নাম খুঁজে বের করতে সক্ষম হবেন। সুতরাং আপনি যদি ব দিয়ে মেয়েদের জন্য ইসলামিক নাম খুঁজে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় পুরো পোস্টটি পড়ুন, আশা করি এখানে উল্লেখিত অসংখ্য নাম থেকে আপনি আপনার মেয়ের জন্য ভালো একটি ইসলামিক নাম চয়েজ করতে সক্ষম হবেন।

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম নিয়ে শেষ কথা

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম নিয়ে শেষ কথা

শুধু মাত্র ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম নয়, বরং যেকোনো বর্ণ দিয়ে যখন আপনারা আপনাদের ছেলে কিংবা মেয়ের নাম রাখতে যাবেন, তখন অবশ্যই আপনাকে উল্লেখিত বিষয়গুলো মাথায় রেখে সন্তানের নাম নির্ধারণ করতে হবে। অন্যথায় আপনি আপনার মেয়ের জন্য একটি নন-ইসলামিক ও নেতিবাচক অর্থবহ নাম সিলেক্ট করে ফেলবেন। এতে করে আপনার সন্তানের নামটি পরোক্ষণে পরিবর্তন করার দরকার হতে পারে অথবা বাধ্য হতে পারেন। তাই যখনই সন্তানের নাম রাখতে চাইবেন, অবশ্যই নামটি সিলেক্ট করার পূর্বে যথেষ্ট গবেষণা সহ রিসার্চ করে নিবেন। অন্যথায়, খুবই সম্ভাবনা থাকে যে, একটি নন-ইসলামিক নাম সিলেক্ট করার। তাই আপনি যদি আজকের আর্টিকেলটি পড়ে থাকেন মূলত ব বর্ণ দিয়ে একটি ইসলামিক নাম রাখার জন্য, তাহলে আপনি উপরোক্ত সবগুলো নাম থেকে আশা করি যেকোনো একটি নাম চয়েজ করতে পেরেছন। আর যদি এখনোও কোনো একটি নামও চয়েজ করতে না পেরে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় পুরো আর্টিকেলের নামগুলো আবার পড়ুন। সর্বপরি, আশা করি আজকের আর্টিকেল তথা ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম সম্পর্কে জেনে আপনি উপৃকত হতে পেরেছন।

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম নিয়ে প্রশ্ন-উত্তর

উল্লেখিত সবগুলো নাম কি ইসলামিক?

হ্যাঁ, এখানে উল্লেখিত সবগুলো নাম ইসলামিক এবং সবগুলো নাম মেয়েদের জন্য প্রযোজ্য। তাই আপনি যদি আপনার কণ্যা কিংবা মেয়ের জন্য ইসলামিক নাম রাখতে চান, তাহলে এখান থেকে যেকোনো একটি নাম রাখতে পারেন।

ব দিয়ে মেয়েদের নাম রাখার ক্ষেত্রে কোন জিনিসগুলো লক্ষ্য রাখা দরকার?

যখনই আপনি ব দিয়ে মেয়েদের নাম রাখতে চাইবেন, তখন আপনি দেখবেন ব দিয়ে তৈরিকৃত মেয়েদের নামটি ইসলামি নাম কি-না এবং নামের অর্থ ইতিবাচক কি-না। সর্বশেষ নামটির সাথে শিরকের কোনো রকম সম্পর্কে রয়েছে কি-না। মূলত এই জিনিসগুলোই লক্ষ্য রাখবেন।

ব দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম নিয়ে সম্পর্কে আরো জানতে

BanglaTeach
E-HaqDigital Marketer at- BanglaTeach

E-Haq is the founder of BanglaTeach. He is expertise on Education, Health, Financial, Banking, Religious and so on.

Leave a Comment